রাস্তার পাশ থেকে অচেতন ব্যাক্তিকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করালো পুলিশ

বিশেষ প্রতিনিধি, টাইমস ২৪ ডটনেট, ময়মনসিংহ থেকে: কোভিড-১৯ করোনার ভয়বহতম দিন গুলোতে দিনের পর দিন অসহায়, দুস্থ্য মানুষের পাশে খাবার নিয়ে হাজির হওয়াসহ চিকিৎসা বঞ্চিতদের জন্য বিনামুল্যে চিকিৎসা ও ওষুধ প্রদান করে ময়মনসিংহের পুলিশ সুপার আহমার উজ্জামান সর্বত্র মানবিক পুলিশ হিসেবে সর্বমহলে প্রশংসা কুড়িয়েছেন। বুধবার ময়মনসিংহ নগরীর পাটগুদাম বাস স্যান্ড ব্রীজ মোড়ে অজ্ঞাত এক ব্যক্তি অচেতন অবস্থায় পড়ে আছে,করোনার ভয়ে কেই তার পাশে যাচ্ছে না,এমন খবর পুলিশ সুপার পাওয়ার পর টেলিফোনে কোতোয়ালী মডেল থানার ওসিকে বিষয়টি খোজ-খবর নিয়ে ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য নির্দেশ দিলে কোতয়ালী মডেল থানার ওসি ফিরোজ তালুকদার নিজেই ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে লোকটিকে উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে মানবতার দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন।
পুলিশ সুপার আহমার উজ্জামান জানান বুধবার নগরীর পাটগুদাম বাস স্ট্যান্ড ব্রীজমোড়ে অজ্ঞাত এক ব্যক্তি অচেতন অবস্থায় রাস্তার পাশে ফলের দোকানের সামনে পড়ে রয়েছে, এমন খবর মোবাইল ফোনে তিনি পাওয়ার পর কেতোয়ালী মডেল থানার ওসি ফিরোজ তালুকদারকে বিষয়টি খোজ-খবর নিয়ে ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য নির্দেশ দেন,ওসি পুলিশ সুপারের নির্দেশ পাওয়ার পর পরই নিজেই একদল পুলিশ নিয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌছে লোকটিকে পানি ও ফলের রস পান করালে লোকটির জ্ঞান ফিরে আসে।
অচেতন ব্যাক্তির জ্ঞান ফিরার পর পুলিশ তার নাম পরিচয় জানতে পারেন,নেত্রকোনা জেলার মোহনগজ্ঞ উপজেলার বড়বাড়িখোলা গ্রামের মৃত কালাচানের পুত্র বাবুল (৪৫) বলে পুলিশের কাছে জানিয়েছেন। বাস যোগে সে ময়মনসিংহে আসার পথে বাসের মাঝে অপরিচিত ব্যাক্তির দেয়া কোমল পানি পান করার পর সে অজ্ঞান হয়ে পড়লে বাসের হেলপার কৌশলে বাস থেকে তাকে নামিয়ে রাস্তার পাশে ফেলে রেখে যায়।
দীর্ঘক্ষন রাস্তার পাশে পরে থাকা লোকটি কোন নড়াচড়া না করায় করোনা ভাইরাসের ভয়ে কেই তার পাশে এসে দাড়াঁয়নি,পথচারীরা বিষয়টি পুলিশ সুপারকে টেলিফোনে জানানোর পর পুলিশ সুপারের নির্দেশে কোতোয়ালী মডেল থানার ওসি ফিরোজ তালুকদার,পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) মুশফিকুর রহমান, পুলিশ পরিদর্শক (ইন্টেলিজেন্ট) উজ্জ্বল কান্তি সরকার ও উপপুলিশ পরিদর্শ মিনহাজ উদ্দিনসহ একদল পুলিশ বুধবার বেলা তিনটার দিকে উদ্ধারকৃত বাবুলকে (৪৫) পুলিশ ভ্যানে করে নিয়ে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ১৪ নং ওয়ার্ডে ভর্তি করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

etiler escort taksim escort beşiktaş escort escort beylikdüzü

Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/times24/public_html/wp-includes/functions.php on line 4757

Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/times24/public_html/wp-content/plugins/really-simple-ssl/class-mixed-content-fixer.php on line 110

Notice: ob_end_flush(): failed to send buffer of zlib output compression (0) in /home/times24/public_html/wp-content/plugins/ssl-zen/ssl_zen/classes/class.ssl_zen_https.php on line 177